35 C
Bangladesh
Friday, June 2, 2023
Homeজাতীয়আগামী মাসেই সরকারি হাসপাতালে প্রাইভেট চিকিৎসা

আগামী মাসেই সরকারি হাসপাতালে প্রাইভেট চিকিৎসা

সরকারি হাসপাতালে নির্দিষ্ট সময়ের পর নিজ কর্মস্থলে রোগী দেখবেন চিকিৎসক। আগামী মাস থেকেই এটি বাস্তবায়ন হবে।

সরকারি হাসপাতালে  চিকিৎসকরা যাতে বেসরকারিভাবে রোগী দেখতে পারেন, সরকার বিষয়টি নিয়ে ‘সক্রিয়ভাবে’ কাজ করছে করেছে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি বলেছেন, ক্লিনিকে চিকিৎসকদের প্রাইভেট প্রাকটিস নীতিমালায় আছে, এটি অন্যায় নয়। তবে নীতিমালায় আছে, স্ব-স্ব কর্মরত প্রতিষ্ঠানে দুপুর ২টা পর্যন্ত পূর্ণ দায়িত্ব পালন করেই তা করতে হবে।

রোগীপ্রতি চিকিৎসকের সর্বোচ্চ ফি ৩০০ টাকা এবং সর্বনিম্ন ১৫০ টাকা।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সূত্র বলছে, প্রাথমিকভাবে উপজেলা পর্যায়ের ৫০টি, জেলা পর্যায়ে ২০টি, বিভাগীয় ৮টি ও বিশেষায়িত ৫টি সরকারি হাসপাতালে প্রাইভেট চেম্বার চালু হবে।

শুরুতে দেশের ৮৩টি সরকারি হাসপাতালে ‘প্রাইভেট চেম্বার’ চালু করতে চায়। আগামী ৩১ আগস্টের মধ্যে দেশের সব সরকারি হাসপাতালে এ সেবা চালুর পরিকল্পনা করছে মন্ত্রণালয়।

খসড়া নীতিমালা অনুযায়ী, জ্যেষ্ঠ চিকিৎসকের ফি হবে ৩০০ টাকা। কনিষ্ঠ চিকিৎসকের ফি ১৫০ টাকা। ফি থেকে জ্যেষ্ঠ চিকিৎসক পাবেন ২০০ টাকা। তাঁর সহায়তাকারী পাবেন ৫০ টাকা। বাকি ৫০ টাকা সরকারি তহবিলে জমা পড়বে। ফি থেকে কনিষ্ঠ চিকিৎসক পাবেন ১০০ টাকা। তাঁর সহায়তাকারী পাবেন ২৫ টাকা। বাকি ২৫ টাকা যাবে সরকারি তহবিলে।

খসড়া নীতিমালায় জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে ফি রাখা হয়েছে ১৫০ টাকা। জেলা-উপজেলা পর্যায়ে যদি জ্যেষ্ঠ চিকিৎসক থাকেন, সে ক্ষেত্রে ফি একই থাকবে কি না, এমন প্রশ্নে কমিটির এক সদস্য প্রথম আলোকে বলেন, ২৩ ফেব্রুয়ারির বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -spot_imgspot_imgspot_imgspot_img

Most Popular

spot_imgspot_imgspot_imgspot_img